November 26, 2020

নীলপরী আর আমি
স্বপ্না ব্যানার্জ্জী

অমাবস্যা রাত, গভীর অন্ধকার,
হঠাৎ স্বপ্নে আসে নীল পরী আর নীল ঘোড়া,
স্বপ্ন শুরু – নীল ঘোড়ার পিঠে নীলপরী,

নীলপরী :- কোথায় যাবি তুই নীল ঘোড়া?

নীলঘোড়া :- চতুর্দিকে তো অন্ধকারের বেড়া,

নীলপরী :- আমি কিন্তু নামব না পিঠ থেকে?

নীলঘোড়া :- একটা ফুল পরল ঝরে দুঃখ চেপেই বুকে,
নীলপরী :- আমার হৃদয় একটি নীলঘোড়া
দিগন্তে ছোটে আমার ঘোড়া লাগাম ছাড়া

ঘুমের ঘোরে বলে উঠি আমি
তোরা কোথায় থাকিস রে?
ঘুমের ফাঁকে পড়িস ঢুকে?
বিষ ঢেলে যাস মাথাতে –

নীলপরী :- আমি শুধু ভালোবাসতে জানি,
ছলে বলে কলে-কৌশলে,

নীলঘোড়া :- আমিও শুধু ভালোবাসায় ভক্ত
এটি একটি অফুরন্ত রহস্য,

আমার স্বপ্নগুলো ডুব দিয়েছিল,
ডুবে থাকার স্বপ্ন আবার কেন এলো উঠে?
আমি স্বপ্নে চেয়েছিলাম আকাশ ছুঁতে!

নীলপরী :- গুপ্তপ্রেম সুপ্ত হয়ে বুকের মাঝে বাজে!
আত্মবলি দিলে শেষে আগের দিনের সাঁঝে,

নীলঘোড়া :- কান্না কাটির রোল ওঠে তাই সারা বাড়ি জুড়ে
দুঃখ ব্যাথা বলে চলে সারা বাড়ি ঘুরে,

আমি তাইতো বলি, তাইতো বলি,
জল্পনা আর কল্পনা কত চলেছে লোক মুখে,
একটা ফুল ঝড়েই গেল দুঃখ চেপে বুকে!