December 2, 2020

দীপঙ্কর চক্রবর্তী,
গত ২৯ শে জুন ৮৪ বছর বয়সে প্রয়াত হলেন পূর্বস্হলীর প্রখ্যাত প্রাক্তন শিক্ষক,কবি,অভিনেতা বলেন্দ্র প্রসাদ ভট্টাচার্য্য মহাশয়।সুদর্শন এই মানুষটি এলাকার মানুষের খুব প্রিয় ছিলেন।বহু গুনের অধিকারী এই বলেন বাবু বিভিন্ন গ্রামে ও তার এলাকা চুপি,কাষ্ঠশালী,পূর্বস্হলীতে যাত্রা,নাটকে দক্ষতার সাথে অভিনয় করেছেন।শিক্ষকতার সাথে সাথে, ছোট গল্প লেখা,কবিতা লেখায় পারদর্শি ছিলেন।তার প্রিয় বন্ধু ছিলেন প্রখ্যাত গল্প লেখক ধর্মদাস মুখোপাধ্যায়।শ্যামাপদ দাস,দিলীপ কুমার মৈত্র।তারাও বলেন বাবুর মৃত্যুতে শোকাহত।বলেন বাবুর অনেক স্মৃতি তারা বলছিলেন।স্হানীয় অনিন্দ্য দাস,অচিন্ত্য সিংহরা বলেন বলেন বাবুর অনেক গুন ছিল,আর সবসময় হেসে সকলের সাথে কথা বলতেন।স্হানীয় ও দূরদূরান্তে বহু কবি সভায় তিনি যেতেন।পূর্বস্হলী শারদ অর্ঘ্য পত্রিকার সম্পাদক সুদীপ বিশ্বাস,ষ্টেশন ম্যানেজার অবনী ভূষন বালা বলেন ২০১৮ সালে বলেন বাবুকে নিয়ে পাঁচ জন কবির কাব্যগ্রন্হ পান্চজন্য নাম দিয়ে প্রকাশিত হয়েছিল।তা ছাড়াও বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় তিনি সাবলিল কবিতা গল্প,প্রবন্ধ লিখে পূর্বস্হলীতে সারা ফেলেছিলেন।চুপির অক্ষয় দত্ত,সত্যেন্দ্রনাথ দত্তর জন্ম স্হান।এই স্হানের মাটিকে তিনি তার নিজস্ব গুনে,মেধায় আলোকিত করেছেন,সমৃদ্ধ করেছেন।তার পুত্র স্নেহাশিষ,কন্যা কেয়া বলছিলেন একবছর আগে মা প্রয়াত হয়েছেন এখন বাবাও চলেগেলেন।পূর্বস্হলীবাসী একজন প্রকৃত গুনী মানুষ, ভালো মানুষকে হারালো।সাথে আমরাও।চুপির অক্ষয় গ্রন্হাগারে বলেন বাবুর একটি স্মরণ সভার আয়োজন চলছে।

ছবি – ফাইল চিত্র