November 26, 2020

সাধন মন্ডল

কেন্দ্রীয় সরকারের রেলকে বেসরকারিকরণ ও পেট্রোল ডিজেল রান্নার গ্যাস সহ নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে বাঁকুড়া জেলার রায়পুর ব্লকের রায়পুর ব্লক তৃণমূল কংগ্রেসের উদ্যোগে অবস্থান-বিক্ষোভ ও পথসভা অনুষ্ঠিত হল রাইপুর সবুজ বাজার সংলগ্ন বাসস্ট্যান্ডে। উপস্থিত ছিলেন বাঁকুড়া জেলা পরিষদের সভাধিপতি মৃত্যুঞ্জয় মুর্মু। রায়পুর বিধানসভার বিধায়ক বীরেন্দ্রনাথ টুডু। রায়পুর ব্লক তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি ধীরেন্দ্রনাথ বাস্কে। রায়পুর পঞ্চায়েত সমিতির সহ-সভাপতি রাজকুমার সিংহ। যুবনেতা দেবাশিস মন্ডল সহ বিভিন্ন নেতৃত্ব। বিক্ষোভ সমাবেশে আগে এক বিশাল মিছিল রায়পুর বাজার পরিক্রমা করে সবুজ বাজারে উপস্থিত হয়। সভাধিপতি মৃত্যুঞ্জয় মুর্মু বলেন কেন্দ্রীয় সরকার আমফানে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য মাত্র এক হাজার কোটি টাকা দিয়েছেন অথচ একটা মূর্তি বানাতে 3 হাজার কোটি টাকা খরচ করেছে ন এই হল কেন্দ্রীয় সরকারের দুমুখো নীতি এবং পশ্চিমবঙ্গ সরকার কে বঞ্চিত করার চক্রান্ত। আজ মা মাটি মানুষের সরকারের উদ্যোগে মানুষ বিনা পয়সায় চালডাল পাচ্ছে, 100 দিনের কাজে জোয়ার এসেছে, পিছিয়ে পড়া এলাকা আর পিছিয়ে নেই বিভিন্ন ক্ষেত্রে উন্নয়নে এগিয়ে চলেছে। বিধায়ক বীরেন্দ্রনাথ টুডু বলেন আমার বিধানসভা এলাকায় কোন মানুষ অভুক্ত নেই লকডাউন এ শুরু থেকেই আমরা বিভিন্ন এলাকার নেতৃত্ব কে নিয়ে অসহায় মানুষদের কাছে খাবার পৌঁছে দিয়েছি এবং এখনো দিয়ে চলেছি। বিভিন্ন প্রকল্পে অসহায় মানুষদের সরকারি সুযোগ সুবিধা পাওয়ার ব্যবস্থা করেছি বার্ধক্য ভাতা প্রতি মাসে 1000 টাকা করে পেয়ে যাচ্ছেন তপশিলি জাতি উপজাতি উপভোক্তারা। উনি আরো বলেন আমরা আপনাদের পাশে আছি আপনারা আমাদের পাশে থাকুন তাহলেই আমরা আমাদের এলাকাকে সোনার এলাকা করে তুলতে পারব তাইআগামী একুশে নির্বাচনে তৃণমূল কংগ্রেস কে ভোট দিয়ে বিপুল ভোটে জয়ী করার আহ্বান জানান।