September 28, 2020

বিরাটি বাজারে বসানো হল স্যানিটাইজিং টানেল

সুবল সাহা

পিন্টু মাইতি

করোনা সংক্রমণের দিক থেকে উত্তর ২৪ পরগণা জেলা রাজ্যে শীর্ষ তালিকায় থেকে প্রশাসনের মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। সরকারি তথ্য অনুযায়ী এই মুহুর্তে জেলার কনটেনমেন্ট জোনের সংখ্যা ৯৫। এ খবর লেখা পর্যন্ত যদিও জেলার অঙ্গ হিসেবে উত্তর দমদম পৌর এলাকাকে কনটেনমেন্ট ঘোষণা করা হয়নি। তবে বেসরকারি সূত্র অনুযায়ী জনগণ আতঙ্কের মধ্যে রয়েছেন। সেই পরিস্থিতিতে বহুদিনের দাবী মেনে জনগণের স্বার্থে জীবাণু সংক্রমণের হাত থেকে রেহাই দিতে অবশেষে বিরাটির প্রাচীন যদুবাবু পৌর বাজারে বসানো হল স্যানিটাইজিং টানেল। ৮ জুলাই বাজারের প্রবেশ পথে এই টানেল আনুষ্ঠানিক ভাবে প্রতিস্থাপন করা হয়।
বাজার কমিটি সূত্রে জানা যায়, তাদের কমিটি ফান্ড থেকে সঞ্চিত অর্থ ব্যয় করে টানেলটি কেনা হয়েছে। তবে স্প্রে করার জন্য মানব-বান্ধব রাসায়নিক তরলের ব্যয়ভারের অর্থ সংগৃহীত হবে বাজারের ব্যবসায়ীদের কাছ থেকেই। ক্রেতাদের শারীরিক তাপমাত্রা মাপা ও নজরদারির জন্য আলাদা ভাবে কর্মী মোতায়েন থাকবে। উত্তর দমদমের অন্তর্গত সমস্ত বাজারের মধ্যে যদুবাবুর বাজারে সর্বপ্রথম স্যানিটাইজিং টানেল বসানোর কৃতিত্ব বাজার কমিটির পক্ষ থেকে দাবী করা হয়েছে। এর আগে এপ্রিল মাসে উত্তর দমদম পৌরসভার প্রবেশ পথে প্রথমবারের মত টানেল বসানো হয়েছিল এবং সেটি এখনও চালু রয়েছে। পৌর বাজারের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন অন্যান্য ব্যবসায়ী সমিতি সহ সমস্ত ক্রেতা। জনৈক ক্রেতা বলেন, এ জাতীয় টানেল বিরাটি তথা জেলার সমস্ত জনবহুল বাজারে বসানো উচিত।