October 25, 2020

জ্যোতিপ্রকাশ মুখার্জি

মায়ের কাছে তিন বছরের শিশু কন্যাকে রেখে নিখোঁজ হলেন বছর বাইশের তরুণী। ঘটনাটি পশ্চিম মঙ্গলকোটের চাণক গ্রামের।
পারিবারিক সূত্রে জানা যাচ্ছে গত ১৫ ই জুলাই নিখোঁজ মুনমুন ধারা (পাল) মোবাইল সারানোর নাম করে চাণকের মামার বাড়ি থেকে বের হন। সন্ধ্যা পর্যন্ত বাড়ি না ফিরে আসায় বাড়ি ও পাড়ার লোকজন মুনমুনকে আশেপাশে খোঁজাখুঁজি করে। পরের দিন অর্থাৎ ১৬ ই জুলাই মুনমুনের স্বামী আসার পর মুনমুনের মা ছায়া ধারা মঙ্গলকোট থানায় নিখোঁজ সংক্রান্ত একটি জেনারেল ডাইরি করেন। প্রসঙ্গত মন্তেশ্বর থানার মন্তেশ্বর গ্রামে মুনমুনের বিবাহ হয় এবং তার স্বামী একটি বেসরকারি ব্যাংকে কর্মরত।
নিখোঁজের সময় পাঁচ ফুট চার ইঞ্চি উচ্চতা বিশিষ্ট মুনমুনের পরণে ছিল হলুদ রঙের চুড়িদার ও প্যাণ্ট। তার গায়ের রঙ ফর্সা, চেহারা মাঝারি। নিখোঁজ হওয়ার পিছনে স্পষ্ট কোনো কারণ জানা যায়নি।
এদিকে মা’কে কাছে না পেয়ে গত কয়েকদিন ধরে তিন বছরের শিশুকন্যা খাওয়া-দাওয়া প্রায় বন্ধ করে দিয়েছে। তাকে নিয়ে পরিবারের সদস্যরা খুবই চিন্তিত। যদিও বর্তমানে সে তার বাবার কাছে মন্তেশ্বরে আছে। মেয়ের চিন্তায় মুনমুনের মা ছায়া দেবী পুরোপুরি ভেঙে পড়েছেন। প্রশাসনের কাছে তার কাতর আবেদন তার সন্তানকে দ্রুত তার কোলে ফিরিয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা করা হোক।