October 22, 2020

সেখ সামসুদ্দিন

কোভিডের দাপটে সাধারণ মানুষ বেসামাল হলেও কোভিড যোদ্ধারা লড়ে যাচ্ছে সামনের সাড়িতে দাঁড়িয়ে, তাদের সম্মান জানাতে এক নতুন প্রকল্প চালু করল পল্লীমঙ্গল সমিতি, নাম “কুটির সুরক্ষা”। বাজারে এখন হ্যান্ড স্যানেটাইজার বা মাস্ক পর্যাপ্ত পরিমাণে পাওয়া গেলেও রুগীর আপতকালীন দরকারের অক্সিজেন সিলেন্ডার কিংবা তার স্বাস্থ্য বোঝার জন্য প্রয়োজনীয় সঠিক পালস অক্সিমিটার এখনো অমিল অনেকাংশে, এই মহামারি পরিস্থিতি মোকাবিলায় স্ব্যাস্থ্য বিভাগের সাথে সাথে লড়ছে পুলিশও। কোনো কোভিড পেশেন্টকে বাড়ি থেকে হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া কিংবা মৃত কোভিড পেশেন্টকে শ্মশানে নিয়ে যাওয়ার জন্য পুলিশ সদা সর্বদা দায়িত্বে। সম্প্রতি পালশিট পুলিশ ক্যাম্পের ৯ জন পুলিশ কর্মীর একসাথে করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর হুঁশ ফেরায়, তারই ফলশ্রুতি এই প্রকল্প। এর মাধ্যমে আমরা প্রতি মাসে পূর্ব বর্ধমান জেলার প্রতিটি থানায় একটি করে প্যাকেট পৌছে দেব যাতে থাকবে ৬লিটারের ২টি অক্সিজিন সিলেন্ডার , পালস অক্সিমিটার সহ পিপিই, মাস্ক, স্যানেটাইজার, সোডিয়াম হাইপোক্লোরাইড, গ্লাভস ইত্যাদি বলে জানান পল্লীমঙ্গল সাধারণ সম্পাদক সন্দীপন সরকার। তিনি আরো জানান আজ সকাল ১১টায় জেলা পুলিশ সুপার মহাশয়ের হাত দিয়ে এই প্রকল্পের শুভ সূচনা করা হল।