October 1, 2020

তিন দিন পরে ঘন জঙ্গলে পাওয়া গেল নিখোঁজ যুবকের গলা কাটা দেহ

কাজল মিত্র

:-পয়লা সেপ্টেম্বরের সন্ধ্যা থেকে নিখোঁজ যুবকের মাথা কাটা পচা গলা দেহ পাওয়া গেল ৪ ই সেপ্টেম্বর শুক্রবার চিত্তরঞ্জন টিপিটি শ্মশান ঘাটের ঘন জঙ্গল থেকে।দেহটি পুলিশ উদ্ধার করেছে।
মৃত যুবকের পরিজনেরা হত্যা করা হয়েছে বলে অনুমান করে জানিয়েছে পুলিশকে এবং কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার কথা বলেছেন। পরিজনের বলেন মৃতদেহটি র মাথা পাথর দিয়ে কুচলে দেওয়া হয়েছে যাতে চেনা না যায় ।
বিগত 2 মাসের মধ্যে এখনও পর্যন্ত তিনটি হত্যার ঘটনা ঘটেছে চিত্তরঞ্জন শহরের বুকে।এতে স্থানীয়রা আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছে । প্রথম দীপক কামত নামক এক যুবকের হত্যা হয়েছিল তারপর বলরাম সিং এখন আবার চিত্তরঞ্জন এর বাসিন্দা রাকেশ প্রসাদ নামক এক যুবকের হত্যার ঘটনা ঘটেছে, যে ফতেহপুরের স্ট্রিট 44-এর বাসিন্দা । তবে পুলিশ এই ঘটনায় মামলা দায়ের করেছে ।পুলিশ জানায় ময়না তদন্তের পরেই সঠিক জানা যাবে ।তবে পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে ।বারবার এরকম ঘটনায় চিত্তরঞ্জন রেল প্রশাসন ও পুলিস প্রশাসনের ভূমিকা কে ভাল চোখে দেখছে না সাধারণ মানুষ প্রশ্ন তুলেছে নিরাপত্তার ব্যাপারে।
মৃতের পরিজনের জানায় 24 বছর বয়সের রাকেশ 1 সেপ্টেম্বর বিকেলে ফোনে কথা বলতে বলতে বাড়িথেকে বেরোই কিন্তু অনেক রাত পর্যন্ত যখন সে বাড়ি না ফেরার বাড়ির লোকেরা তাকে ফোন করে কিন্তু ফোন বন্ধ পায় ।
তবে ঘটনা স্থল থেকে কোন মোবাইলও পাওয়া যায়নি।পরিজনের রাকেশের বন্ধুদের প্রতি সন্দেহ করে ।রাকেশ কোন কাজ করত না তবে তার বন্ধু দের সাথে বিভিন্ন নেশায় আকৃষ্ট ছিল ।
পরিবারের লোকেরা জানাই আমরা থানায় অভিযোগ করতে এলে আমাদের সাথে অভদ্র আচরণ করে এবং অভিযোগ নিতেও অস্বীকার করে ।