October 20, 2020

সেখ নিজাম আলম

দূর্গাপূজা উপলক্ষে ভিডিও কনফারেন্স গলসি থানায়— পূর্ব বর্ধমান জেলার গলসি থানায় আজ ভিডিও কনফারেন্স হয়ে গেল। নেতাজী ইনডোর থেকে সরাসরি বক্তব্য রাখেন রাজ্যের মূখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রথমেই তিনি জানান শারদীয়ার দূর্গাপূজা এবার হবে নিয়ম মেনে। তিনি সমাজের সকল স্তরের মানুষদের কথা ভেবে একরাশ সহযোগিতার কথা ঘোষণা করেন। যেমন, প্রতি পূজা কমিটিকে ৫০ হাজার টাকা দেওয়া হবে। এবং সকলকেই সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ও মাস্ক পড়ে পূজা মন্ডপে উপস্থিত থাকতে হবে। প্রয়োজনে পূজা কমিটিকে মাস্ক বিতরণ করতে হবে। পুরোহিতকে এক হাজার টাকা ভাতা ও এক লক্ষ কুড়ি হাজার টাকায় একটা করে বাড়ী দেওয়া হবে। সিভিল ভলেন্টিয়ারকে এক হাজার করে মাইনে বাড়ানোর ঘোষণা করেন তিনি। এক লক্ষ পচাত্তর হাজার হকারকে দু হাজার করে টাকা দেওয়া হবে। তাছাড়া ঈমামদেরকে সংখ্যলঘুদপ্তর থেকে একটা করে বাড়ী তৈরি করে দেওয়া হবে। আশা ও আই,সি,ডি,এস কর্মীদের এক হাজার করে মাইনে বাড়ানো হোল। রিটায়ার্ড করার পর অঙ্গনওয়াড়ী কর্মীদের তিন লাখ করে টাকা দেওয়া হবে। এমন বিভিন্ন ঘোষনায় খুশী এলাকার মানুষ। এই ভিডিও কনফারেন্সে উপস্থিত ছিলেন প্রশাসনিক মহল ও পূজা কমিটির সদস্য, তাছাড়া এলাকার বিশিষ্ট মানুষ ছাড়াও বিধায়ক অলোক কুমার মাঝি,হাফেজ ক্বারী মৌলানা ইয়াসিন সাহেব প্রমূখ। বিধায়ক অলোক কুমার মাঝি জানান, পূজা কমিটিকে পঞ্চাশ হাজার অনুদান করায় আর চাঁদা তোলার কোন প্রয়োজন হবে না। সিমনোর থেকে পুরসা পর্যন্ত রোডের দুপাশে লরী থাকায় বিপদ বাড়ছে। তা দৃষ্টি আকর্ষণ করার জন্য ডি,এস,পি ক্রাইমের নজরে দেন হাফেজ ক্বারী মৌলানা ইয়াসিন সাহেব। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রেখে এই দূর্গাপূজা হবে বলেও তিনি জানান। এই ভিডিও কনফারেন্সে এলাকার বহু মানুষ যোগদান করেন।